ভাবসম্প্রসারণ

স্বাধীনতা অর্জনের চেয়ে স্বাধীনতা রক্ষা করা কঠিন ভাব সম্প্রসারণ – Snigdhasokal

 স্বাধীনতা অর্জনের চেয়ে স্বাধীনতা রক্ষা করা কঠিন । 

স্বাধীনতা অর্জনের চেয়ে স্বাধীনতা রক্ষা করা কঠিন  ভাব সম্প্রসারণ - Snigdhasokal


ভাব সম্প্রসারণ: স্বাধীনতা জাতীয়জীবনের অমূল্য সম্পদ ।কোনো পরাধীন জাতির পক্ষে স্বাধীনতা অর্জন করা অত্যন্ত কঠিন কাজ ।সেই অর্জিত স্বাধীনতাকে রক্ষা করা আরো বেশি কঠিন ।

যে কোনো পরাধীন জাতি স্বাধীনতা লাভ করতে চায় ।স্বাধীনত লাভ করা খুব সহজ কাজ নয় ।বহু ত্যাগ স্বীকার ও বহু সংগ্রামের মাধ্যমে স্বাধীনতা অর্জনের চেষ্টা করতে হয় ।দীর্ঘ সংগ্রাম ও বহু রক্তপাতের ফলেই একদিন স্বাধীনতা আসতে পারে ।কারণ শক্তিমদমও শোষক – শাসকেরা কখনো তাদের স্বাধীন কোনো জাতিকে স্বাধীনতা প্রদান করতে চায় না ।দীর্ঘকাল ব্যাপী যুদ্ধ ও অসংখ্য প্রানের বিনিময়ে স্বাধীনতা অর্জিত হয় ।স্বাধীনতা অর্জিত হলেই সব কাজ শেষ হয়ে যায় না ।একে চিরস্থায়ী করতে হলে আর এক ধরনের শক্তি ও সামর্থ্যের প্রয়োজন ।স্বাধীন দেশের ভেতরে ও বাইরে শএুর অভাব থাকে না ।স্বাধীনতার বিরোধিরা এবং বাইয়ের শএুরা গোফনে দেশের ক্ষতি করতে তৎপর থাকে ।অত্যন্ত সচেতন ও ঐক্যবদ্ধ না থাকলে স্বাধীনতা রক্ষা করা যায় না ।স্বাধীনতাকে রক্ষা করে তাকে ফলপ্রসু করতে হলে প্রয়োজন হয় – জাতীয় ঐক্য নিশ্চিত করে তার মাধ্যমে অর্থনৈতিক ও সাংস্কৃতিক স্বনির্ভরতা অর্জন ।কিন্তু এ কাজ খুব সহজ নয় ।বিভিন্ন জাতির স্বাধীনতার অভিজ্ঞতা থেকে প্রতিয়মান হয় যে,স্বাধীনতা অর্জন করা কঠিন হলেও রক্ষা ও ফলপ্রসু করার কাজ আরো কঠিন ।তাই স্বাধীনতা অর্জনের পর দেশের পুনর্গঠন ,উন্নয়নে ও বহিঃশএুর হাত থেকে একে রক্ষা করার জন্যে সদা প্রস্তুত থাকা একান্ত প্রয়োজন ।কেননা তখন একদিকে থাকে পরাজিত শক্তি ও তাদের দেশীয় অনুচরদের জিঘাংসা ও মরণকামড়ের জ্বালা ,অন্যদিকে স্বাধীনতার পক্ষের শক্তির অভ্যন্তরীণ রেষাবেষি ।পাশাপাশি ব্যক্তিগত ,পারিবারিক ,সামাজিক ,অর্থনৈতিক ,সাংস্কৃতিক,ধর্মীয় ও রাজনৈতিক জীবনের উন্নয়ন ও স্বনির্ভরতা অর্জন করা খুব সহজ কাজ নয় ।স্বাধীনতার মৌলিক শর্ত হলো নিজে বাঁচা ও অপরকে বাঁচতে সাহায্য করা ।স্বাধীনতার নামে স্বেচ্ছাচরের মাধ্যমে অনেকে হীনস্বার্থ চরিতার্থ করতে চায় ।এতে অন্যের মৌলিক অধিকার বিঘ্নিত হয় ও সামজিক শৃঙ্খলা বিনষ্ট হয় ।ফলে নৈতিক অবক্ষয় শুরু হতে পারে এবং রাষ্ট্রীয় সংহতি বিপন্ন হতে পারে ।আর এসব ক্ষেত্রে রয়েছে মানুষের নানাবিধ সমস্যা ।অনেক সময় এ সমস্যই সৃষ্টি করে সামাজিক ,অর্থনৈতিক,সাংস্কৃতিক ,ধর্মীয় ও রাজনৈতিক বিশৃঙ্খলতার ।ফলে রাষ্ট্রীয় জীবনে দেখা দেয় হতাশা ,কমে যায় কর্মোদ্দীপনা ,সর্বোপরি জাতীয় উন্নতি মুখ থুবড়ে পড়ে ।তখন স্বাধীনতার গুরুত্ব ,তাৎয ও মর্ম রক্ষা হতাশা ,প্রশ্ন বড় হয়ে দেখা যায় । তাই স্বাধীনতা রক্ষার জন্যে দেশের সর্বস্তরের জনসাধারণকে সচেষ্ট ও কর্তব্যপরায়ণ হয়ে মাঠে-ময়দানে,কল-খারখানায় অবিরাম কাজ করতে হবে ।দেশকে শিল্প ও বাণিজ্যে উন্নত করে দেশের আর্থিক সচ্ছলতা আনতে হবে ।কৃষির উন্নতি বিধান করে দেশকে খাদ্যে স্বয়ংসম্পূর্ণ করতে হবে ।পৃথিবীতে যে জাতি যত সমৃদ্ধ , সে জাতি তত স্বাধীন ।কোনো জাতি রাজনৈতিক স্বাধীনতার অধিকারী হওয়া সও্বে ও যদি অর্থনৈতিক মুক্তি অর্জন করতে না পারে ,সে জাতিকে যথার্থ স্বাধীন বলা দুরূহ ।সামাজিক উৎকর্ষ ও অর্থনৈতিক উন্নতি সমন্বিত হলেই অর্জিত স্বাধীনতা দৃঢ় ভিওির ওপর প্রতিষ্ঠিত হয় ।এভাবেই কষ্টার্জিক স্বাধীনতাকে ব্যর্থতার হাত থেকে রক্ষা করতে হয় এব্ং বলিষ্ঠ ও আত্নপ্রত্যয়ী –জাতি হিসেবে স্বাধীনতাকে অম্লান রাখতে সচেষ্ট হতে হবে ।তবেই অর্জিত স্বাধীনতা রক্ষা করা সম্ভব ।নতুবা ঈন্সিত স্বাধীনতা ভূলুষ্টিত হয়ে পড়বে ।

স্বাধীনতা অর্জিত হয় অনেক রক্ত দিয়ে ।তাই এ-স্বাধীনতা রক্ষার জন্যে সবাইকে অনেক অনেক ত্যাগ স্বীকার করতে হবে ।তবেই স্বাধীনতা হবে অর্থবহ এবং অর্জিক স্বাধীনতা রক্ষা করতে হলে অক্লান্ত পরিশ্রম ,সততা ঐক্যবদ্ধ কর্ম প্রেরণা প্রয়োজন ।

স্বাধীনতা অর্জনের চেয়ে স্বাধীনতা রক্ষা করা কঠিন ।
 

ভাব সম্প্রসারণ : পরাধীন জাতির পক্ষে স্বাধীনতা অর্জন অত্যন্ত কঠিন কাজ ।কিন্তু অর্জিত স্বাধীনতাকে রক্ষা করা আরও কঠিন । স্বাধীনতা অর্জিত হলেই তা চিরস্থায়ী হয় না ।তাই স্বাধীনতা রক্ষায় জাতিকে থাকতে হয় সদা জাগ্রত ।

স্বাধীনতা মানুষের জন্নগত অধিকার ।আম মানুষ মাএই স্বাধীনতাপ্রিয় ।তার জীবনের প্রধান আকাঙ্ক্ষা স্বাধীনতা ।স্বাধীনতা কথাটি যতই মধুর হোক না কেন এটা অর্জন করা কঠিন ।আর অর্জিত স্বাধীনতা রক্ষা করা আরও কঠিন ।স্বাধীনতাকে পাবার জন্যেই মানুষ যুগ যুগ ধরে সংগ্রামে করে এসেছে ।নিপীড়িত ,অত্যাচারিত জাতি স্বীয় মযাদাকে অক্ষুন্ন রাখার জন্যে সংগ্রাম করে মুক্তি লাভ করে থাকে ।কিন্তু এ মুক্তি অর্জনই শেয় উদ্দেশ্য নয় ।একে সমুন্নত রাখাই মুখ্য উদ্দেশ্য ।স্বাধীনতা অর্জনের পর দেশের পুনগর্ঠন ,উন্নয়ন ও বহিঃশএুর হাত থেকে একে রক্ষা করার জন্যে সদা প্রস্তুত থাকা একান্ত প্রয়োজন ।স্বাধীনতা লাভের পর পরাধীনের মতো জীবনযাপন না করে বলিষ্ঠ ও আত্নপ্রত্যয়ী জাতি হিসেবে স্বাধীনতাকে অম্নান রাখতে সচেষ্ট হতে হবে ।তবেই অর্জিত স্বাধীনতা রক্ষা করা সম্ভব ।নতুবা ঈঙ্গিত স্বাধীনতা ভূলুষ্ঠিত হবে ।আপন কর্মপ্রেরণা ,চিন্তাধারা ও শৃঙ্খলা বোধের দ্বারাই প্রমাণ করতে হবে কাঙ্কিত –স্বাধীনতার ,যৌক্তিকতা ।আর মানুষের যাবতীয় কাযকলাপের মূল উদ্দেশ্র হচ্ছে স্বাধীনতাপূর্ণ গৌরবোজ্জল জীবনের বিকাশ ।

পরাধীন জাতি কঠিন ত্যাগ,কঠোর পরিশ্রম ,সুদীর্ঘ সংগ্রামের মাধ্যমে স্বাধীনতা অর্জন করে ।তাই স্বাধীনতার মযাদা ও গুরুত্ব উপলদ্ধি করে একে রক্ষণাবেক্ষণে তৎপর থাকা আমাদের জাতয়য় কর্তব্য ।

স্বাধীনতা অর্জনের চেয়ে স্বাধীনতা রক্ষা করা কঠিন ।

মূলভাব : কোনো কিছূ অর্জন করা যতটা সহজ তাকে রক্ষা ও উপভোগ করা তার চেয়েও বেশি কঠিন ।

সম্প্রসারিত ভাব : স্বাধীনতা মানুষের জন্নগত অধিকার ।এটি ছাড়া মানুষ নিজেকে সঠিকভাকে বিকশিত করতে পারে না ।তবে স্বাধীনতা কথাটি যতই মধুর হোক না কেন,মুখে বললেই তা অর্জন করা যায় না ।তার জন্যে বহু ত্যাগ স্বীকার করতে হয় । অনেক ত্যাগ ও তিতিক্ষার পর শোষণের নাগপাশ ছিন্ন করে স্বাধীনতা লাভ করতে হয় ।কোনো রকম ত্যাগ স্বীকার না েকরে কোনো জাতি কোনোদিন স্বাধীনতা অর্জন করতে পারিনি ।কিন্তু স্বাধীনতা অর্জনের চেয়ে তা রক্ষা করতে আরো বেশি ত্যাগ তিতিক্ষার প্রয়োজন হয় ।এতো ত্যাগ এতা কৃতিত্ব সাধনার পর যে স্বাধীনতা অর্জিত হয়,তাকে রক্ষা করে তার স্থায়িত্ব বিধান করতে আরো বেশি কষ্ট করতে হয় ।সেজন্যে প্রয়োজন হয় নিরলস পরিশ্রম ও পারস্পরিক ঐক্য ।এই কষ্টার্জিত স্বাধীনতা রক্ষা করতে নারী-পুরূষ সকল নাগরিককে অশেষ চেষ্টা ও কর্তব্যনিষ্ঠর সাথে মাঠে ময়দানে ,কল কারখানায় অবিরাম কাজ করতে হয় ।দেশকে শিল্প ও বাণিজ্যে উন্নত করে দেশের আর্থিক সচ্ছরতা আনতে হয় ।কৃষির উন্নতি বিধান করে দেশকে খাদ্যে স্বয়ংসম্পূর্ণ করতে হয় ,তাহলে নাগরিকদের মধ্যে সচেনতা আসে ।তখন আর্তিক ও আর্তিক দিক দিয়ে তারা উন্নত ও মননশীল হয়ে ওঠে ।তাতে দেশের স্বাধীনতা ও সার্বভৌমত্ব আরো সু্ন্দর হয় ।দেশে ও দেশপ্রেমিক নাগরিকদের জন্নে হয় ,তারা দেশের যে কোনো সমস্যায় এগিয়ে আসে ।তাই স্বাধীনতা অর্জন করা যত সহজ তা রক্ষা করা তার চেয়ে বেশি কাঠিন ।

আরো পড়ুন –দুর্জন বিদ্বান হইলেও পরিত্যাজ্য

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button