ভাবসম্প্রসারণ

জাল কহে’ ‘পঙ্ক আমি উঠাব না আর ।’জেলে কহে ‘মাছ তবে পাওয়া হবে ভার ভাবসম্প্রসারণ

 জাল কহে’ ‘পঙ্ক আমি উঠাব না আর ।’জেলে কহে ‘মাছ তবে পাওয়া হবে ভার ।’

জাল কহে’ ‘পঙ্ক আমি উঠাব না আর ।’জেলে কহে ‘মাছ তবে পাওয়া হবে ভার ভাবসম্প্রসারণ


ভাব সম্প্রসারণ : মাছ পানির মধ্যে থাকে ।জেলে পানির মধ্যে জাল ফেলে মাছ ধরতে গেলে জাল নদীর তলার কাদা ঘসে ঘসে আসে ।ফলে মাছ আর পালাতে পারে না ।তবে জালে কাদা লেগে যায় ।জেলে যদি জালে কাদা না লাগিয়ে মাছ ধরতে চায় তাহলে তা হবে পন্ডশ্রম ।কারণ জালে কাদা না লাগিয়ে মাছ ধরা কোনো ক্রমেই সম্ভব নয় ।এই পৃথিবীর সংগ্রামসঙ্কুল কর্মক্ষেএরূপ জলধিতে প্রতিটি ভাগ্যান্বেষী মানুষ এক একজন জেলের মতো ।কর্মফল রূপ মাছ ধরাতে হলে তাকে বারবার প্রচেষ্টার জাল ফেলতে হয় ।তাতে দুঃখের পাঁক মেখে থাকে ।এই দুঃখকে এড়িয়ে চলঅ সম্ভব নয় ।মানুষের কাম্য হলো সুখ ,কিন্তু সে –সুখের গন্তব্যে পৌঁছানোর পথটা সংগ্রামসঙ্কুল ।কষ্ট তাকে করতেই হয়,নইলে কেষ্ট মিলবে না ।বিনা শ্রমে কোনো কিছুই অর্জন করা সম্ভব নয় ।শ্রমের মধ্যেই যাতীয় অভীষ্টলাভ এবং সুখের বীজ নিহিত ।কিন্তু কষ্টের ভয়ে এ কাজ থেকে দূরে সরে থাকলে অভীষ্ট লাভ কখনোই সম্ভব নয় ।বস্তুত ভালো –মন্দ ,দুঃখ –বেদনা ,হাসি-কান্না ,বাধা-বিঘ্ন ,আশা-নিরাশা নিয়েই মানুষের জীবন ।জীবনে আঘাত আসবে বিভিন্ন বাধা –বিঘ্ন আসবে  এটাই স্বাভাবিক ।কিন্তু আঘাতের পরেই আসে সাফল্য ।যে আঘাতের ভয়ে,দুঃখ –কষ্টের ভয়ে কাজ না করে হাত-পা গুটিয়ে বসে থাকে পরিণামে সে ভালো ফল থেকে হয় বঞ্চিত ।তেমনি শুধু ভালোকেই গ্রহণ করতে হবে কিংবা মন্দকে আসতে দেয়া যাবে না ,এমনটি মনে করা ঠিক নয় ।কেননা মন্দের মাপকাঠিতেই ভালোটা উপলদ্ধি করা যায় ।অন্ধকার না থাকলে যেমন আলোর মহিমা বোঝা যায় না,পাপ না থাকলে পুণ্যের গৌরব বোঝা যায় না ,তেমনি মন্দ না থাকলে ভালোকে চেনা যায় না ।মন্দ জিনিসের মধ্য থেকেই ভালো জিনিস চিনে নিতে হয় ।

এপৃথিবীতে কষ্ট,ত্যাগ,তিতিক্ষা ও অধ্যবসায়ের মাধ্যমে সাফল্য অর্জন করতে হয় ।ঈপ্সিত লক্ষ্যে পৌঁছতে হলে কঠোর পরিশ্রম ও সহিষ্ঞুতার সঙ্গে সংগ্রাম করতে  হয় ।

 জাল কহে’ ‘পঙ্ক আমি উঠাব না আর ।’জেলে কহে ‘মাছ তবে পাওয়া হবে ভার ।’

মূলভাবযে কোনো জিনিস পেতেহলে প্রথম কষ্ট স্বীকার করতে হবে ।কষ্ট করে যা পাওয়া যায় তা –ই মূল্যবান ।

সম্প্রসারিত ভাব : মর্ত্যলোক মানুষের কর্মক্ষেএ ।কাজের মধ্যে দিয়েই মানুষ এখানে প্রতিষ্ঠা লাভ করে ।কিন্তু প্রতিষ্ঠা লাভের আগে তাকে পরিশ্রম করতে হয়,সাধনা করতে হয় ।বিনা পরিশ্রমে কোনো কিছুই সহজলভ্য নয়।পৃথিবীর কাজের মধ্যে দুঃখ আছে ,জ্বালা আছে ।আর এসব জ্বালা যন্তনা জয় করার জন্য অকুতোভয়ে অগ্রসর হওয়া বাঞ্ছনীয় ।দুঃখ ,জ্বালা –যন্তণার ভয়ে কেউ যদি অগ্রগমনে পরন্নুখ হয় তাহলে জীবন যুদ্ধে বিজয়ী হওয়া কঠিন ।বিজয়ী না হওয়ার মানে আকাঙ্ক্ষিত ফল লাভ না করা ।সুতরাং যে কোনো কাজ যত কঠিনই হোক বজ্র কঠিন শপথ নিয়ে সংসার রণাঙ্গনে জয়লাভের অপার বাসনায় উদ্বুদ্ধ হতে হবে ।তবেই কাঙ্ক্ষিত সম্পদ লাভ সম্ভব হবে ,অন্যথায় নয় ।

জেলে নদীতে জাল ফেলে মাছ পাবার অভিলঅষে ; কিন্তু মাছ পেতে হলে আগে তো পঙ্ক উঠাতে হবে ।পঙ্ক না উঠিয়ে জেলে মাছ পাবার আশা করতে পারে না যদি করে তরে তা বাতুলতা মাএ ।তেমনি সংসারে সফলত লাভের আকাঙ্ক্ষায় অবশ্যই পরিশ্রম ও সাধনায় করা অত্যাবশ্যক ।তাকে জেলের মতোই দুঃখ কষ্টরুপ পঙ্ক নির্মূল করতে হবে ।পঙ্ক নির্মুল না করতে পারলে মাছ পাওয়া যাবে না ।বিনা পরিশ্রমে ফল লা্ভ করা যায় না ।তাই বলা হয় ‘কষ্ট না করলে কেষ্ট মেলে না ।’

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button