ভাবসম্প্রসারণ

একতাই বল ভাবসম্প্রসারণ

 একতাই বল ।

একতাই বল ভাবসম্প্রসারণ


 ভাব সম্প্রসারণ : সকলে মিলেমিশে কাজ করার মধ্যে যেমন আনন্দ আছে,তেমনি সবাই মিলে যে কোনো কঠিন কাজও সহজে সমাধা করা যায় ।একজনের জন্যে যা বোঝাস্বরূপ দশজনের জন্যে তা একটি লাঠির মতোই হালকা।তাই মিলেমিশে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করার মধ্যেই সফলতার চাবিকাঠি নিহিত ।

একজন মানুষ যখন একা তখন তার শক্তি থাকে সীমিত ।কিন্তু যখন একতাবদ্ধ হয়ে দশজনের একসঙ্গে কোনো কাজে হাত দেয় তখন সে হয় অনেক সবল ও শক্তিশালী ।এই একতাবদ্ধ শক্তি তখন রূপ নেয় প্রচন্ড শক্তিতে ।তখন যে কোনো কঠিন কাজ আর কঠিন মনে হয় না ।এজন্য প্রয়োজন একতার ।পৃথিবীর আদিপর্বে মানুষ ছিল ভীষণ অসহায় ।কারণ তখন সে ছিল একা ।সভ্যতার উষালগ্নে মানুষ উপলদ্ধি করল যে ঐক্রবদ্ধ জীবন ছাড়া এ পৃখিবীর সমস্ত প্রতিকুলতার কাছে সে তুচ্ছ ।তাই মানুষ স্বীয় প্রয়োজনে নিজের শ্রেষ্টত্ প্রতিপন্ন করার জন্যে গড়ে তোলে সমাজবদ্ধ জীবন ,হয়ে ওঠে সামাজিক বলে বলীয়ান ।পৃথিবীতে যে একা,সেই অসহায় ।আর যে অসহায় তার সামর্থ্য নেই বললেই চলে ।শক্তি বা সামর্থ্যের ক্ষুদ্রতার কারণে একক মানুষ সকলের নিকটে উপেক্ষিত কিন্তু যারা ঐক্যবদ্ধ তাদের শক্তি অসীম ।ঐক্যই প্রকৃত শক্তি ।বিন্দু বিন্দু বৃষ্টির সমন্বয়ে সৃষ্টি হয় বিশাল জলরাশি ,তদ্রপ ক্ষুদ্র ক্ষুদ্র শক্তির সমন্বয়ে সৃষ্টি হয় অসীম শক্তি ।ঠিক এমনিভাবে অনেক ব্যক্তিসওা যখন একতাবদ্ধ হয়ে সমষ্টির সৃষ্টি করে,তখন তাদের সমবেত শক্তি জাতীয় জীবনে বিরাট অবদান রাখতে সক্ষম হয় ।একতার শক্তি অসম্ভবকে সম্ভবে পরিণত করে ।সমগ্র জাতির মধ্যে  একতা ছিল বলেই আমরা মুক্তিযুদ্ধে জয়ী হয়েছি ।পাকিস্তানি শক্তিধর সশস্তবাহিনীর বিপুল সৈন্যকে পরাভূত করেছি ।আমরা আমাদের ইতিহাসের দিকে তাকালে দেখি যখন আমাদের জাতীয় জীবনে ঐক্যের অভাব হয়েছে তখনই নানা বিপদ ও দুর্ভাগ্য নেমে এসেছে ।শুধু জাতীয় জীবনে নয়,আমাদের সামাজিক ও পারিবারিক জীবনেও একতার প্রয়োজন ।একতাবদ্ধ হযে আমরা যে –কোনো কাজ যত সহজে ও নির্বিঘ্নে করতে পারি একাকী তা করা সম্ভব নয় ।প্রবাদ আছে‘একতাই বল’ ।মানুষ এককভাবে সামান্য আর তুচ্ছ বলেই সভ্যতার উন্নতির বিকাশে চাই মানুষের ঐক্যবদ্ধ প্রয়াস ।

 একতাই বল ।

 মূলভাব: সকলের মিলিত শক্তিই প্রকৃত শক্তি ।নির্দিষ্ট সময়ে দশজনে যে কাজ করতে পারে একজনের পক্ষে তা অসম্ভব ।

সম্প্রসারিত ভাব:আমাদের প্রতিদিন নানা ধরনের কাজ করতে হয় ।কোনো কাজ আমরা একাই করতে পারি ,আবার কোনো কোনো কাজ করতে অনেক লোকের প্রয়োজন হয় ।সেক্ষেত্রে অনেকের সমবেত প্রচেষ্টা দরকার ।বিশেষ করে কোনো বড় বা কঠিন কাজ করতে লোকেন দরকার ।অনেক লোক একসাথে কাজ করলে সে কাজ সহজ ও সুন্দর হয় ।উদাহরণস্বরূপ বলা যায়,একটি ক্ষুদ্র মৌমাছি একা কোনো মৌচাক তৈরি করতে পারে না ।অথচ অসংখ্য মৌমাছির মিলিত প্রচেষ্টায় বিশাল মৌচাক তৈরি হয়,আবার কেউ মৌচাকে আক্রমণ করলে মৌমাছিরা একতাবদ্ধ হয়ে শএুর ওপর ঝাঁপিয়ে পড়ে ।তাই সহজে কেউ তাদের ক্ষতি করতে পারে না ।একটি দালান তৈরি করা একজনের পক্ষে সম্ভব নয়,অনেক শ্রমিক-কর্মচারীর মিলিত প্রচেষ্টায় গড়ে ওঠে বিশাল দালান ।একজন যে বোঝা বইতে পারে না ,দশজনে ভাগাভাগি করে নিলে সেটা বইতে কারো কষ্ট হয় না ।আসলে একা যে কাজ করা খুবই কঠিন ,দশজনে মিলে সে কাজ অতি সহজেই করা সম্ভব ।এজন্যেই বলা হয়-unity is strength ‘একতাই বল’।

 

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button